Daily Poribar
Bongosoft Ltd.
ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ জুন, ২০২৪, ১২ আষাঢ় ১৪৩১

কেশবপুরে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে হত্যার চেষ্টা


দৈনিক পরিবার | নাজিম উদ্দীন জুন ১০, ২০২৪, ০৮:৪২ পিএম কেশবপুরে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে হত্যার চেষ্টা

যশোরের কেশবপুরে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে হত্যার চেষ্টা করে বাম হাতের কব্জি থেকে ভেঙ্গে দিয়েছে পাষণ্ড যৌতুক লোভী স্বামী আবুল কাশেম। আহত স্ত্রী তাসলিমা বেগম (৩৬) কেশবপুর সরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে।
স্থানীয় পারিবারিক সুত্রে জানা গেছে উপজেলার মঙ্গলকোট ইউনিয়নের বসুন্তিয়া গ্রামের মহির উদ্দিন সরদারের ছেলে পাষণ্ড স্বামী কাশেম সরদার (৫২) তাসলিমা বেগমকে গত ২৪ বছর আগে বিয়ে করে। দীর্ঘ দাম্পত্য জীবনে তাদের দুই সন্তান ফায়সাল আহমেদ (২২) ও ফারজানা খাতুন (২০) রয়েছে।
সম্প্রতি স্বামী আবুল কাশেম যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে বিভিন্ন সময়ে চাঁপ দিতে থাকে এবং স্ত্রীকে শারিরীক ভাবে নীর্যাতন করতে থাকে। সে প্রায় সময়ে স্ত্রীকে মারপিট করে বাড়ি থেকে চলে যায়। ইতিমধ্যে আবুল কাশেম বহুবার তালাকপ্রাপ্ত এক মহিলাকে বিয়ে করে মঙ্গলকোট বাজারে ঘর ভাড়া নিয়ে সেখানে বসবাস করে।
বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পরে গত ৩ জুন আবুল কাশেম বাড়িতে গিয়ে পুনরায় যৌতুকের টাকার দাবীতে ও দ্বিতীয় বিয়ে করার ঘটনায় স্ত্রীর সাথে ঝগড়া বিবাদের এক পর্যায় স্বামী অত্যান্ত ক্ষিপ্ত হয়ে স্ত্রীকে হত্যার উদ্দেশ্যে লোহার শাবল দিয়ে মাথায় আঘাত করতে যায়। এসময়ে হাত দিয়ে ঠেকাতে গেলে শাবলের বাড়িতে তার বাম হাতের কব্জি থেকে মারাত্মক ভাবে ভেঙ্গে যায় এবং রক্তাক্ত জখম হয়।
তাছলিমা বেগম কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। তারপরেও স্বামী একদিনে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন স্ত্রীকে দেখতে আসেনি।
গতকাল রোববার এই রিপোর্ট লেখা পযর্ন্ত পাষান্ড স্বামীর বিরুদ্ধে মাননীয় আদালতে মামলার সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে বলে যানা যায়।

Side banner