Daily Poribar
Bongosoft Ltd.
ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ জুন, ২০২৪, ১২ আষাঢ় ১৪৩১

লিবিয়ায় পাবনার প্রবাসীকে জিম্মি করে মুক্তিপণ আদায়


দৈনিক পরিবার | মো. নূরুন্নবী জুন ৭, ২০২৪, ০৮:২৬ পিএম লিবিয়ায় পাবনার প্রবাসীকে জিম্মি করে মুক্তিপণ আদায়

লিবিয়ায় অবস্থানরত পাবনার এক প্রবাসীকে জিম্মি করে নির্যাতনের ভিডিও দেখিয়ে বাংলাদেশে ভিকটিমের পরিবারের কাছ থেকে মুক্তিপণ আদায়ের অভিযোগে অপহরণ চক্রের ২ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পাবনা জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।
শুক্রবার (৭ জুন) দুপুরে এ তথ্য জানান পাবনার পুলিশ সুপার (এসপি) আকবর আলী মুনসী। এর আগে বৃহস্পতিবার (৬ জুন) দেশের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলেন চাঁদপুর জেলার মতলব দক্ষিণের দক্ষিণ পশ্চিম দিঘলদি এলাকার মৃত পন্ডিত আলী বেপারীর ছেলে হাবিবুর রহমান সুমন (৩০) এবং একই এলাকার দেলয়ার হোসেন গাজীর ছেলে রবিউল আওয়াল রবি (২৮)।
পুলিশ সুপার বলেন, মো. মাসুদ (৪০) নামে পাবনার এক ব্যক্তি গত ৪ বছর যাবত লিবিয়ার সিটি খলিফা নামক স্থানে দরজির দোকান নিয়ে ব্যবসা করে আসছিলেন। গত ১৪ মে সকাল ৮টায় অজ্ঞাতনামা ইমো নম্বর হতে ভিকটিম মো. মাসুদের স্ত্রীর ইমো নম্বরে ফোন করে বলে তার স্বামীকে অপহরণ করা হয়েছে। জীবিত ফেরত চাইলে তাদের ১০ লাখ  টাকা মুক্তিপণ দিতে হবে। টাকা না দিলে মাসুদকে প্রাণে মেরে ফেলবে বলে অপহরণকারীরা বাংলাদেশী বিকাশ নম্বর দেয় এবং টাকা পাঠাতে বলে।
মাসুদের অসহায় বাবা ধার-দেনা করে অপহরণকারীদের দেয়া বিকাশ নম্বরে ১০ লক্ষ টাকা প্রদান করে। উক্ত টাকা পাওয়ার পর ২০ মে অপহরণকারীরা ইমো নম্বর হতে পুনরায় ফোন করে আরও ১৫ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে এবং মাসুদকে মারধরের ভিডিও প্রেরণ করে।
তিনি আরও জানান, এক পর্যায়ে মাসুদের মা মলিনা খাতুন পাবনা সদর থানায় অভিযোগ দিলে বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে কাজ শুরু করে পুলিশ। এক পর্যায়ে ডিবি টিম তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় ও অনুসন্ধানী নানান কৌশল ব্যবহার করে অভিযুক্তদের শনাক্ত এবং চাঁদপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে।
গ্রেফতারকৃতদের সঙ্গে লিবিয়ায় থাকা অপহরণকারীদের পূর্ব পরিচয় আছে। অপহরণকারীরা অপহৃতদের পরিবারের পাঠানা টাকা দেশে থাকা সুমন ও রবির মাধ্যমে টাকা লেনদেন করতো। লিবিয়ায় থাকা অপহরণকারীদেরও পরিচয় পাওয়া গেছে, তবে এই মুহুর্তে তাদের নাম পরিচয় প্রকাশ করছি না। আমরা অপহৃতকে উদ্ধারে জোর প্রচেষ্টা চালাচ্ছি।

Side banner