Daily Poribar
Bongosoft Ltd.
ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ জুন, ২০২৪, ১২ আষাঢ় ১৪৩১

সুনামগঞ্জ সদরে চপল শান্তিগঞ্জে অভি মধ্যনগরে রাজ্জাক নির্বাচিত


দৈনিক পরিবার | তৈয়বুর রহমান জুন ৬, ২০২৪, ১১:১০ এএম সুনামগঞ্জ সদরে চপল শান্তিগঞ্জে অভি মধ্যনগরে রাজ্জাক নির্বাচিত

চতুর্থ ধাপের ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সুনামগঞ্জ সদর থেকে দ্বিতীয় বারের মত উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচন হয়েছেন খায়রুল হুদা চপল, শান্তিগঞ্জ উপজেলায় নির্বাচিত হয়েছেন সুনামগঞ্জ-৩ আসনের সাংসদ এম এ মান্নানের পুত্র সাদাত মান্নান অভি এবং মধ্যনগর উপজেলায় মো. আব্দুর রাজ্জাক ভূঁইয়া।
৫ জুন, বুধবার সকাল ৮ টা থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বিভিন্ন কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ করা হয়।সকালে আবহাওয়া খারাপ হলেও ১০ টার পর থেকে আবহাওয়া ভালো হওয়ায় বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বিভিন্ন এলাকার ভোটাররা নির্বিঘ্নে ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন।
সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার ৭৮ টি ভোট কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ করা হয়। সুনামগঞ্জ  জেলা যুবলীগের চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল (মোটর সাইকেল) প্রতীকে পান ৩৬১৯৪ টি ভোট এবং তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী যুবলীগ নেতা ফজলে রাব্বী স্মরণ (আনারস) প্রতীকে পান ২৫২৫৪টি ভোট এবং অ্যাডভোকেট মনিষ কান্তি দে মিন্টু (ঘোড়া)প্রতীকে পান ১৫৬২১টি ভোট।
দ্বিতীয় বারের মত চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে খায়রুল হুদা চপল বলেন- ভোট নিয়ে অনেক দূর্নীতি হয়েছে। তবুও আমার ভোটাররা আমাকে ভালোবেসে নির্বাচিত করেছেন। এই জয় আমার ভোটারদের এবং উপজেলাবাসীর।
অন্যদিকে, শান্তিগঞ্জ উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়েছেন সাবেক পরিকল্পনা মন্ত্রী,পরিকল্পনা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি সুনামগঞ্জ ৩ আসনের সাংসদ এম এ মান্নানের পুত্র শান্তিগঞ্জ উপজেলা আওয়ামিলীগের সিনিয়র  সহ-সভাপতি সাদাত মান্নান অভি।  তিনি (আনারস) প্রতীকে পেয়েছেন ৪১৩২৮টি ভোট।তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী শান্তি উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান ও সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা আওয়ামিলীগের সভাপতি আবুল কালাম (মোটর সাইকেল)প্রতীকে পান ১৯৩৮৬টি ভোট।ঘোড়া প্রতীকে আরেক চেয়ারম্যান প্রার্থী  সিনিয়র আইনজীবী, সুনামগঞ্জ সরকারি কলেজে সাবেক ভিপি বোরহান উদ্দিন দোলন কত ভোট পেয়েছেন সঠিক করে জানা যায়নি। শান্তিগঞ্জের ৫৬ টি ভোট কেন্দ্রের ৪৯ টি কেন্দ্রে জয় লাভ করেছেন সাদাত মান্নান অভি এবং ৬টিতে জয়লাভ করেছেন আবুল কালাম।
মধ্যনগর উপজেলায় (মোটরসাইকেল) প্রতীকে ১২৮৫৩টি ভোট পেয়ে  নির্বাচিত হয়েছেন মো. আব্দুর রাজ্জাক ভূঁইয়া। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ নেতা মো. সাঈদুর রহমান (কাপ-পিরিচ) প্রতীকে পান ৯৯১৭টি ভোট।

Side banner